বুধবার, ২৭ মে ২০২০, ০২:৫৬ পূর্বাহ্ন

নোটিশঃ-
রাজৈর নিউজের ওয়েব সাইটে আপনাকে স্বাগতম নিত্যনতুন সকল সংবাদ পড়তে আমাদের সাথেই থাকুন
সর্বশেষ সংবাদঃ-
শিবচর থেকে ১৫৫০ পিসইয়াবাসহ ০৩ জন মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার করেছে র‌্যাব রাজৈরে নতুন করে করোনায় আক্রান্ত দুই যুবক,সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন গৃহবধূসহ দুই জন ডেপুটি স্পীকার ফজলে রাব্বীর স্ত্রী আনোয়ারা রাব্বীর মৃত্যুতে জাতীয় সংসদের চীফ হুইপের শোক শিবচরে এক পুলিশ সদস্যর করোনা সনাক্ত, সংস্পর্শর খোজ মিলছে না শিবচরে পদ্মা সেতু দেখতে আসা যুবক মটরসাইকেল উল্টে নিহত ঈদের খরচ বাঁচিয়ে শিবচরে গুচ্ছগ্রাম বাসীদের মাঝে সেমাই ও বিরিয়ানী বিতরন ইউএনওর সৌদি আরবের সাথে মিল রেখে মাদারীপুরে ৪০ গ্রামে ঈদ-উল ফিতর উদযাপন মুকসুদপুরে চেয়ারম্যানের রাইচ মিল থেকে ৫ জুয়াড়ী আটক রাজৈরে কুমার নদের পাড় থেকে গৃহবধূর লাশ উদ্ধার,পরিবারের দাবি পরিকল্পিত হত্যা,স্বামী আটক রাজৈরে শাজাহান খান এমপির পক্ষ থেকে ঈদ উপহার বিতরণ
ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সম্মেলনকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের জের’হাত-পা বেঁধে নদীতে ফেলে দিয়ে যুবককে হত্যা

ইউনিয়ন আওয়ামীলীগ সম্মেলনকে কেন্দ্র করে সংঘর্ষের জের’হাত-পা বেঁধে নদীতে ফেলে দিয়ে যুবককে হত্যা

Murder

add 720x200

রাজৈর(মাদারীপুর) প্রতিনিধি:ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সম্মেলনকে কেন্দ্র করে  মঙ্গলবার সকালের সংঘর্ষের জের ধরে শাহ আলম (৫০) নামে এক যুবককে হাত-পা বেধে কুমার নদে ফেলে দিয়ে হত্যা করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। ঘটনাটি ঘটেছে   মঙ্গলবার  রাজৈর উপজেলার সীমান্তবর্তী গোপালগঞ্জ জেলার মুকসুদপুর উপজেলার গোহালা ইউনিয়নের উত্তর গঙ্গারামপুর গ্রামে রাত ৮টা দিকে। শাহ আলম (৫০) একই গ্রামের মৃত আবদুল খালেক শেখের ছেলে।

                                          নিউজের ভিডিও

পুলিশ ও পারিবারিক সুত্র জানায়, গোপালগঞ্জের মুকসুদপুর উপজেলার গোহালা ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সম্মেলনের প্রস্তুতি সভায় সম্ভাব্য সভাপতি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে  মঙ্গলবার সকালে সিন্দিয়াঘাট বাজারে সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান লিটন বয়াতির অনুসারি ও বর্তমান ইউপি চেয়ারম্যান সফিকুল ইসলামের  অনুসারিদের মধ্যে সংঘর্ষ  বাধেঁ ।  এ সংঘর্ষে উভয়পক্ষের মহিলাসহ ১০জন আহত হয় । আহতদের নিকটতম মাদারীপুরের রাজৈর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছিল । দুপুরে শাহআলাম রাজৈর স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আহত চাচাতো বোন মিনাকে দেখে বাড়ীর পথে রওনা হয় । এর পর থেকে  শাহআলম নিখোঁজ হয় । অনেক খোজাখুজি করে তাকে পাওয়া যায়নি । এলাকাবাসী রাত ৭টা দিকে হাত-পা বাধা অব্স্থায় শাহআলমকে কুমার নদের পাড়ে পড়ে আছে দেখতে পেয়ে   উদ্ধার করে রাত ৮টার সময় রাজৈর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে আসলে স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ প্রদীপ চন্দ্র মন্ডল জানান  হাসপাতালে আনার পুর্বেই সে মারা গেছে।
চাচাতো বোন মিনা জানায়, প্রতিপক্ষরা আমার ভাইকে হাত-পা বেধে হত্যা করে নদীতে ফেলে দিয়েছে।
সিন্দিয়াঘাট পুলিশ ফাঁড়ীর ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এসআই আবুল বাসার ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, লাশের ময়নাতদন্তের রিপোর্ট হাতে পেলে মৃত্যুর সঠিক কারন জানা যাবে  ।
মুকসুদপুর থানার ওসি মোস্তফা কামাল পাশা জানান, এ ব্যাপারে অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে ।

Comments

comments

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

add 720x200

Leave a Reply




add 300x600

উন্নয়ন সহযোগীতায়ঃ- সেভেন ইনফো টেক